ঢাকা,রোববার, ৭ মার্চ ২০২১

ন্যায্য মূল্যের দাবিতে মানববন্ধন

‘লবণ চাষী বাঁচলে, বাঁচবে দেশ-শেখ হাসিনার বাংলাদেশ’

বিশেষ প্রতিনিধি, কক্সবাজার ::  ‘লবণ চাষী বাঁচলে, বাঁচবে দেশ-শেখ হাসিনার বাংলাদেশ ও লবণ শিল্প বাচঁলে- বাঁচবে টেকনাফ’সহ বিভিন্ন স্লোগানকে সামনে রেখে লবণ আমদানি বন্ধ ও লবণের ন্যায্য মূল্যের দাবিতে মানববন্ধন করেছে কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলা লবণ চাষী কল্যাণ সমিতি। বুধবার বিকেলে উপজেলা পরিষদ অফিস প্রাঙ্গণে এ সংগঠনের উদ্যোগে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

টেকনাফ উপজেলা লবণ চাষী কল্যাণ সমিতির সভাপতি শফিক মিয়ার নেতৃত্বে সদস্য সচিব ও পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি জাবেদ ইকবাল চৌধুরীর সঞ্চালনায় কয়েক শ লবণ চাষী মানববন্ধনে অংশ নেয়।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেছেন, লবণ শিল্প ধ্বংস এবং লবণ উৎপাদনকারী চাষিরা ন্যায্যমূল্য থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। মাঠ পর্যায়ে উৎপাদিত লবণের দাম নেই, একটি শক্তিশালী সিন্ডিকেট লবণের দাম নিয়ন্ত্রণ করে নানা প্রক্রিয়ায় বিদেশ থেকে অবৈধভাবে লবণ আমদানি করায় চরম সংকটে পড়েছে দেশীয় লবণ শিল্প।

তাছাড়া উৎপাদিত লবণ বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৪ টাকা, প্রতি মণ ১৬০ থেকে ১৮০ টাকা। অথচ প্রতি কেজি লবণ উৎপাদন ব্যয় হচ্ছে কেজি প্রতি ৫ থেকে ৬ টাকা ও প্রতি মণ ২১০ থেকে ২২০ টাকা। প্রসঙ্গত, টেকনাফে প্রায় আড়াই হাজার একর উপকূলীয় জমিতে লবণ উৎপাদন হয়ে থাকে।

লবণ উৎপাদনকারীরা আরো বলেন, এভাবে চলতে থাকলে এ অঞ্চলে আগামীতে লবণ চাষ বন্ধ হয়ে যাবে। এতে হাজারো লবণ চাষী বেকার হয়ে চরম দুর্ভোগে পড়বে, থাকবে অর্ধাহারে- অনাহারে। লবণ শিল্পকে রক্ষা করে এই এলাকার গরিব চাষীদের উৎপাদিত লবণের ন্যায্য মূল্য যাতে পায় সে ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃষ্টি কামনা করেন চাষীরা। মানববন্ধন শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সাইফুল ইসলামের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন লবণ চাষীরা।

পাঠকের মতামত: