Home » রামু » রামুতে মাসব্যাপী ফুটবল প্রশিক্ষণের সমাপনী ও সনদ বিতরণ সম্পন্ন

রামুতে মাসব্যাপী ফুটবল প্রশিক্ষণের সমাপনী ও সনদ বিতরণ সম্পন্ন

It's only fair to share...Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

qqফারুক আহমদ, উখিয়া ॥

ক্রীড়া পরিদপ্তর প্রনীত বার্ষিক কর্মসূচীর আওতায় রামু উপজেলার আল-ফুয়াদ একাডেমীতে মাস ব্যাপী ফুটবল প্রশিক্ষনের সমাপনী ও সনদ বিতরণ অনুষ্ঠান গত রবিবার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

খুনিয়াপালং ইউনিয়নের মেম্বার ও ক্যাপটেন মনসুর আলী স্মৃতি সংসদের সভাপতি আব্দুল্লাহ বিদ্যুৎতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, কক্সবাজার জেলা ক্রীড়া কর্মকর্তা মো: নাজিম উদ্দিন ভুঁইয়া। বিশেষ অতিথি ছিলেন, যথাক্রমে কক্সবাজার এয়ারপোর্টের ইঞ্জিনিয়ার তারেক আহমদ ও আল-ফুয়াদ একাডেমীর প্রধান শিক্ষক মোস্তফা দিদার চৌধুরী। বক্তব্য রাখেন, প্রশিক্ষক ও আল-ফুয়াদ একাডেমীর সিনিয়র শিক্ষক মো: ইসমাঈল, এহসানুল করিম চৌধুরী, ভালুকিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আনোয়ার ইবনে কামাল।

প্রধান অতিথি জেলা ক্রীড়া শিক্ষক মো: নাজিম উদ্দিন বলেন, ক্রীড়াই শক্তি, জাতির সুস্থতা। ক্রীড়াই জাতীয় ও আর্ন্তজাতিক পরিচিত লাভের অন্যতম মাধ্যম। তিনি আরও বলেন, বর্তমান সরকার তৃণমূল পর্যায়ে মেধাবী ক্রীড়াবিদ বের করার জন্য দীর্ঘমেয়াদী ও স্বল্প মেয়াদী প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণ সত্যিই প্রশংসার দাবী রাখে।

পরে ৩০ জন প্রশিক্ষাণার্থীদের মাঝে সনদ ও টিশার্ট বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানটি যৌথভাবে সঞ্চালনা করেন প্রশিক্ষক মো: ইসমাঈল ও দশম শ্রেণীর ছাত্র জুবাইরুল গণি।

###############

কোর্টবাজারে ড্রেইন সংস্কার, বাজার সেড তৈরি সহ কানের্টিং সড়ক নির্মাণে মাষ্টার প্লানের কাজ শুরু

ফারুক আহমদ, উখিয়া ॥

উখিয়া উপজেলার ব্যস্ততম কোর্টবাজার স্টেশনে পানি নিস্কাশনে ড্রেইন সংস্কার, বাজার সেড তৈরি ও কানের্টিং সড়ক নির্মাণে মাষ্টার প্লান গ্রহণ করেছে স্থানীয় রতœাপালং ইউনিয়ন পরিষদ। ব্যবসায়ী, ক্রেতা ও বিক্রেতার সুবিধার্থে প্রায় ২০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে মাষ্টার প্লানের কাজ শুরু করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন চেয়ারম্যান খাইরুল আলম চৌধুরী।

সরজমিন পরিদর্শনে দেখা যায়, দীর্ঘদিন ধরে কতিপয় মহল কোর্টবাজার ষ্টেশনের ড্রেইন দখল ও ভরাট করার কারণে বর্ষার মৌসুমে পানি নিস্কাশন বাঁধাগ্রস্থ হয়ে পড়ে। এতে করে পুরো ষ্টেশনে কাঁদা মাটি ও ময়লা আর্বজনা যুক্ত পানিতে ভরপুর হয়। এছাড়াও তরকারী বাজার, কাঁচা বাজারসহ অন্যান্য বাজারে সেড না থাকায় ক্রেতা বিক্রেতারা রোদে পুড়ে ঝড়ে ভিজে ব্যবসা বাণিজ্য চালিয়ে যেতে হয়।

এদিকে রতœাপালং ইউনিয়ন পরিষদ কোর্টবাজার স্বাস্থ্যকর ও পরিস্কার পরিচ্ছন্ন ষ্টেশন হিসাবে গড়ে তুলার লক্ষে ব্যাপক কর্মসূচী গ্রহণ করে। কর্মসূচীর মধ্যে রয়েছে ভরাট হওয়া ড্রেইন সংস্কার, পানি নিস্কাশনের জন্য ড্রেনেজ ব্যবস্থা, তরকারী বাজার ও কাঁচা মাছ বাজার সেড তৈরি ও যাতায়তের কানের্টিং সড়ক নির্মাণ।

রতœাপালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খাইরুল আলম চৌধুরী জনসাধারণের স্বার্থে ও ব্যবসায়ীদের সুবিধার্থে কোর্টবাজার ষ্টেশনকে ঢেলে সাজাতে ২০ লক্ষ টাকার একটি মাষ্টার প্লান হাতে নেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে ড্রেইন নির্মাণ, বাজার সেড তৈরির জন্য মাটি ভরাট ও পানি নিস্কাশনের জন্য ড্রেনেজ ব্যবস্থার কাজ শুরু হয়েছে। যাতায়তের জন্য বিকল্প সড়ক বা কানেটিং সড়ক নির্মাণ কাজ ইতিমধ্যে শুরু হবে। পর্যায়ক্রমে সব কাজ বাস্তবায়ন হবে বলে তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

চকরিয়া-পেকুয়া আসনে জাতীয় পাটির মনোনয়নপত্র নিয়েছেন বর্তমান এমপি হাজি ইলিয়াছ

It's only fair to share...000নিজস্ব প্রতিবেদক, চকরিয়া ::   একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কক্সবাজার-১ (চকরিয়া-পেকুয়া) আসন ...