ঢাকা,শনিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২২

চকরিয়ায় ব্যালট পেপার নষ্টের অভিযোগে প্রিসাইডিং অফিসারের বিরুদ্ধে মামলা, কারাগারে প্রেরণ

নিজস্ব প্রতিবেদক, চকরিয়া :: ব্যালট পেপার বিনষ্টের অভিযোগে পূর্ববড় ভেওলা ইউনিয়নের ছোট ভেওলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার মজিবুর রহমান (৪৫) এর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। সোমবার রাতে কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার পূর্ববড় ভেওলা ইউনিয়ন সাধারণ নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার ও উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. সুপন নন্দী বাদী হয়ে এই মামলাটি দায়ের করেন। ওই মামলায় তিনি এখন কারাগারে রয়েছেন।

আটক হওয়া মজিবুর রহমান মহেশখালী উপজেলার কালারমারছাড়া ইউনিয়নের উত্তর নলবিলা গ্রামের সুলতান আহমদের ছেলে ও বদরখালী ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ২৮ নভেম্বর পূর্ববড় ভেওলা ইউপির ৬ নম্বর ওয়ার্ড ছোট ভেওলা স. প্রা. বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন বদরখালী কলেজের অধ্যক্ষ মজিবুর রহমান। ভোট চলাকালীন সময় তিনি কিছু ব্যালট পেপার নিয়ে কেন্দ্রের বাইরে ভবনের তৃতীয় তলায় যাওয়ার সময় উক্ত কেন্দ্রের পোলিং এজন্টেরা তাতে বাধা দেন। এ বিষয়টি প্রশাসনকে জানানো হয়। পরে দায়িত্বরত দুইজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, কক্সবাজারের ২ জন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। দুপুর ৩টা ৪০ মিনিটের সময় তার প্যান্টের পকেটে বিনষ্ট করা চেয়ারম্যান নির্বাচনের ৫১ টি, সংরক্ষিত সদস্যের ৬০টি ও সাধারণ সদস্যের ৫৫টি ব্যালট পেপার উদ্ধার করা হয়। এসময় তাকে আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ ওসমান গণি বলেন, ২৮ নভেম্বর ভোট চলাকালীন ব্যালট পেপার বিনষ্ট করে পকেটে ভরে নিয়ে যাওয়ার খবর পেয়ে প্রিসাইডিং অফিসার মজিবুর রহমানকে আটক করা হয়।

পরে তার বিরুদ্ধে ব্যালট পেপার বিকৃত বা বিনষ্ট করাসহ ভোট কেন্দ্র হতে বাইরে নিয়ে যাওয়া এবং সরকারী দায়িত্ব পালনে ব্যর্থতা ও সরকারি পদ মর্যাদার অপব্যবহার করার অপরাধে স্থানীয় সরকার নির্বাচন বিধিমালা অনুযায়ী মামলা করা হয়। ওই মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

 

পাঠকের মতামত:

 
error: Content is protected !!