ঢাকা,বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪

মেয়াদের এক বছর আগেই গোপনে পহরচাঁদা ফাজিল মাদ্রাসার শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচন

কক্সবাজারের চকরিয়া পহরচাঁদা কামিল মাদ্রাসায় ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ জি এ এম ছাইফুল হকের স্বেচ্ছাচারিতায়, নিজের ভারপ্রাপ্ত দায়িত্বকে দীর্ঘায়িত করার জন্য ইসলামী আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের বিধি অমান্য করে প্রতিষ্ঠানটির গভর্নিং বডির নির্বাচন করার অভিযোগ।

স্থানীয় সূত্রে জানাযায়, ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ জিএএম ছাইফুল হক নিজের ভারপ্রাপ্ত দায়িত্বকে পাকাপোক্ত করার জন্য অধ্যক্ষ নিয়োগ কৌশলে বন্ধ রেখেছে বলে জানান । এবং সেটাকে আরো মজবুত করার জন্য ৩বছর মেয়াদ শেষের একবছর পূর্বেই গোপনে বডির নির্বাচন করেছে ।

ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয় ওয়েবসাইটে দেখা যায় গত ৮ আগষ্ঠ ২২ইং পহরচাঁদা ফাজিল মাদ্রাসার কমিটি আবেদনের প্রেক্ষিতে ১২ মে ২২ইং থেকে ১১ মে ২৫ ইং পর্যন্ত ৩ বছরের জন্য কমিটি অনুমোদন দেয়।

জিএএম ছাইদুল হক গত ২০২৩ সালের ১ ফেব্রুয়ারী ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের দায়িত্ব নেন। অভিযোগ উঠেছে সেই থেকে বিভিন্ন অনিয়মের মাধ্যমে দায়িত্ব দীর্ঘ করার নীলনকশার চেষ্টা করছে ।

এই ব্যাপারে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের কাছে জানতে চাইলে তিনি প্রথমে নির্বাচনের কথা অস্বীকার করে। পরে আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন নীতিমালার কথা জিজ্ঞেস করলে তিনি শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচনের স্বীকার করেন,তবে সেটা তাদের আভ্যন্তরীণ ব্যাপার ।

আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন কর্মকর্তা মামুন বলেন,তাদের নির্বাচনের খবর আমি জানি না,তবে নির্বাচন করলেও বিশ্ববিদ্যালয় অনুমোদনের পরেই তাদের কমিটি বৈধ হবে।

এই ব্যাপারে মাদ্রাসার গভর্নিং বডির সভাপতি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা)র কাছে জানতে মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করেও বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

পাঠকের মতামত: