ঢাকা,বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪

৬ ঘন্টা পর লাশ উদ্ধার

চকরিয়া  মাতামুহুরী নদীতে মাছের ঝাঁক তৈরিকালে পানিতে ডুবে  দুই যুবকের মৃত্যু

কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার মাতামুহুরী নদীতে মাছ ধরার ঝাঁক তৈরি করতে গিয়ে পানিতে ডুবে দুই যুবক নিখোঁজ হয়েছে। বুধবার (২৪ এপ্রিল)  সকাল আনুমানিক দশটার দিকে উপজেলার বেতুয়া বাজার ব্রিজের পাশে মাতামুহুরী নদীতে ঘটেছে এ ঘটনা। এ ঘটনার পর চকরিয়া ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল স্থানীয় জনগণের সহায়তায় রুদ্ধদ্বার তল্লাশি অভিযান চালিয়ে  গতকাল বিকাল চারটার দিকে প্রায় ৬ ঘন্টা পর ঘটনাস্থল থেকে দুই যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন স্থানীয় পুর্ববড় ভেওলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফারহানা আফরিন মুন্না। তিনি বলেন, বুধবার সকাল আনুমানিক দশটার দিকে চকরিয়ার বেতুয়া বাজার ব্রীজের দক্ষিণ পাশে মাতামুহুরি নদীতে মাছ ধরার ঝাঁক তৈরি করতে নামে দুই যুবক। এসময় তাঁরা মুহুর্তে পানিতে তলিয়ে যায়।
নিহত দুই যুবক হলেন চকরিয়া উপজেলার পূর্ব বড় ভেওলা ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের কালাগাজী সিকদার পাড়ার মোহাম্মদ ইদ্রিসের ছেলে মোহাম্মদ মনসুর (২২) ও একই ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ডের সিকান্দার পাড়ার আবদুস ছালাম মনুর ছেলে মোহাম্মদ মুবিন (১৯)।
চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো.ফখরুল ইসলাম বলেন, মাতামুহুরী নদীতে দুই যুবক নিখোঁজ হওয়ার ঘটনা শুনে তাৎক্ষণিক চকরিয়া ফাযার সার্ভিসের একটি ইউনিটকে ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়। তাঁরা নিখোঁজ যুবকদের সন্ধানে প্রাণপণ চেষ্টা অব্যাহত রাখেন। এরই মধ্যে চট্টগ্রামে ফায়ার সার্ভিসের প্রশিক্ষিত ডুবুরি দলকে খবর দেওয়া হয়। দুপুরের দিকে চকরিয়া উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) মুহাম্মদ ইরফান উদ্দিন, থানা পুলিশের একটি টিম ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে চট্টগ্রাম থেকে আগত
ডুবুরি দলের সদস্যরা নিখোঁজ যুবকদের সন্ধানে নদীর বিভিন্ন পয়েন্টে তল্লাসি শুরু করেন।
ইউএনও ফখরুল ইসলাম বলেন, অভিযানের একপর্যায়ে বিকাল চারটার দিকে মাতামুহুরী নদীর ঘটনাস্থল থেকে দুই যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।
পুর্ববড় ভেওলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফারহানা আফরিন মুন্না বলেন, মাতামুহুরী নদীতে ডুবে দুই যুবকের মৃত্যুর ঘটনায় তাদের পরিবার সদস্যরা বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন। এ ঘটনায় পুরো এলাকাজুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তিনি আরও বলেন,  চকরিয়া  উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ( ইউএনও) মো.ফখরুল ইসলাম ও চকরিয়া থানার ওসি শেখ মোহাম্মদ আলীর সার্বিক সহযোগিতায় আইনগত প্রক্রিয়া শেষে দুই যুবকের মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

পাঠকের মতামত: