ঢাকা,শুক্রবার, ১ মার্চ ২০২৪

নৌকা প্রার্থীর সংবর্ধনায় যাওয়ার পথে হামলা

চকরিয়ার সাহারবিল ইউপি চেয়ারম্যান নবী হোসেনসহ ২০ জনের বিরুদ্ধে মামলা

স্টাফ রিপোর্টার, চকরিয়া :: চকরিয়ার সাহারবিলের আলোচিত ইউপি চেয়ারম্যান নবী হোসেনসহ ২০ জনের বিরুদ্ধে হামলা ও গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গুরুতর আহত আওয়ামী লীগ নেতা এনামুল হকের ভাই মুজিবুর রহমান সুজন বাদি হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন।

গত বুধবার বিকাল তিনটার দিকে চকরিয়া-পেকুয়া আসনে নৌকার প্রার্থী সালাহ উদ্দিন আহমদ সিআইপি’র সংবর্ধনায় যাওয়ার পথে সাহারবিল ইউনিয়নের রামপুর এলাকায় ইউপি চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে হামলা চালিয়ে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক সহ ১৩ জনকে আহত করা হয়েছে।

ওইসময় ৯-১০টি ভাঙচুর করেছে।  ১ ডিসেম্বর শুক্রবার বিকালে মামলাটি চকরিয়া থানায় রেকর্ড হয়েছে বলে জানিয়েছেন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শেখ মোহাম্মদ আলী।

তিনি বলেন, গত ২৯ নভেম্বর সাহারবিল ইউনিয়নের রামপুর এলাকায় একটি ঘটনায় এজাহার দিলে সেটি শুক্রবার বিকালে মামলা হিসেবে রেকর্ডভূক্ত করা হয়।

উল্লেখ্য , বুধবার দুপুরে চকরিয়া পৌরশহরের বাস টার্মিনাল এলাকায় নৌকা প্রতিকের প্রার্থী ও জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দিন আহমদের সংবর্ধনায় যাচ্ছিলেন সাহারবিল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও পরিষদের মেম্বার এনামের নেতৃত্বে পাঁচ শতাধিক লোক।

এসময় সাহারবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নবী হোছাইন চৌধুরীর নেতৃত্বে ১০-১২জন লোক দেশীয় অস্ত্র, লাঠিসোটা, হকিস্টিক ও লোহার রড নিয়ে অতর্কিতভাবে তাদের উপর হামলা চালায়।

এসময় ভাংচুর করা হয় ৯-১০টি গাড়ি। হামলায় আওয়ামীলীগ নেতা এনামুল হক ও মাহামুদুল হক সহ ১৩ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। ওইদিন রাতে এনামুল হকের ভাই মুজিবুর রহমান সুজন বাদি হয়ে থানায় একটি এজাহার দায়ের করেন। শুক্রবার বিকালে মামলাটি রেকর্ডভূক্ত করা হয়।

পাঠকের মতামত: