ঢাকা,মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪

লামায় সৎ ভাইয়ের দায়ের কোপে প্রাণ হারালেন বড় বোন

লামা প্রতিনিধি :: লামায় পারিবারিক সম্পত্তি নিয়ে বিরোধের জের ধরে সৎ ভাই এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করেছে বড় বোনকে। গতকাল বুধবার দুপুরে উপজেলার ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের বগাইছড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহতের নাম শামসুন্নাহার বেগম (৪৫)। তিনি বগাইছড়ি গ্রামের বাসিন্দা ছৈয়দ আলমের মেয়ে ও আলী আজমের স্ত্রী। এ ঘটনায় স্থানীয়রা ঘাতক সৎ ভাই শহর আলী (২৪) ও সৎ মা সাকেরা বেগমকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, বগাইছড়ি গ্রামের বাসিন্দা ছৈয়দ আহমদ গত প্রায় ৮ বছর আগে ২ স্ত্রী এবং ১০ ছেলেমেয়ে রেখে মারা যান। তার মৃত্যুর পর থেকে পারিবারিক সম্পত্তির ভাগ–ভাটোয়ারা নিয়ে ছেলে–সন্তানদের মধ্যে প্রায়ই বিরোধের সৃষ্টি হয়। বুধবার দুপুর ১২টার দিকে শামসুন্নাহার বেগম গরু নিয়ে বাড়িতে ফেরার সময় সৎ মা সাকেরা বেগম ও ভাই শহর আলীর সঙ্গে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে শহর আলী শামসুন্নাহারকে দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে পার্শ্ববর্তী চকরিয়া উপজেলার একটি হাসপাতালে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে লামা থানা অফিসার ইনচার্জ মো. শামীম শেখ বলেন, পৈত্রিক সম্পত্তি ভাগাভাগি নিয়েই এ ঘটনার সূত্রপাত। বোনকে হত্যার ঘটনায় শহর আলীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্রাথমিক সুরতহাল শেষে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য বান্দরবান মর্গে পাঠানো হয়েছে।

পাঠকের মতামত: