ঢাকা,বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪

৩ দুর্ঘটনায় প্রাণহানী ৮

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়া যেন মৃত্যু ফাঁদ

এইচ এম রুহুল কাদের, চকরিয়া :
চট্রগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়া অংশে দুর্ঘটনা যেন নিত্য দিনের, দুর্ঘটনা নামক মৃত্যুর ফাঁদ থেকে রেহাই পাচ্ছে না পথচারীরা । প্রতিদিন ঘটছে দূর্ঘটনা এবং প্রাণহানী হচ্ছে চালক ও যাত্রীদের । দেশে প্রতিদিনই সড়ক দুর্ঘটনায় অকালে অসংখ্য প্রাণ ঝরছে, অনেকে আহত হয়ে দুর্বিষহ জীবন যাপন করছে । দুর্ঘটনায় মৃত্যুর মিছিল যেন কিছুতেই থামছে না। মহাসড়কে দুর্ঘটনা রোধে সরকারের পক্ষ থেকে বিভিন্ন পদক্ষেপ কাজে আসছে না । নিয়ন্ত্রণ করা যাচ্ছে না বেপরোয়া যান চলাচল ।

গত ১৮দিনের পরিসংখ্যানে দেখা যায়,চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়া অংশে তিনটি মারাত্মক সড়ক দুর্ঘটনায় ৮জন প্রাণহারায় । এরমধ্যে গত রবিবার (২৬ফেব্রুয়ারী) হারবাং এলাকায় মালবাহী একটি ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে হোটেলে ডুকে পড়লে ঘটনাস্থলে এক শ্রমিক নিহত হয় । এবং শনিবার ( ৪ মার্চ) হারবাং-আজিজনগর এলাকায় বিজিবির বাসের সাথে লেগুনার সংঘর্ষে ৫জন নিহত হয় । সর্বশেষ বুধবার (১৫ মার্চ) বরইতলী এলাকায় গ্রীনলাইন বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলে দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত।

এই ব্যাপারে নিরাপদ সড়ক চাই চকরিয়া উপজেলার সভাপতি সোহেল মাহমুদ বলেন, বেপরোয়া গাড়ি চালানো, যত্রতত্র গাড়ি থামানো,এবং অদক্ষ চালকের কারণে মহাসড়কে প্রতিনিয়ত প্রাণহানী হচ্ছে , তারজন্য জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে আমরা কাজ করছি।
চকরিয়া-কক্সবাজার হাইয়েস মাইক্রোবাস মালিক সমিতির সভাপতি নজরুল ইসলাম রাসেল বলেন,মহাসড়কে তিন চাকার গাড়ি চলাচল, এবং লবনবোঝাই গাড়ি থেকে পানি পড়ে সড়ক পিচ্ছিল,অদক্ষ চালক ও ছোট বাচ্চাদের মোটরসাইকেল চালানোর কারণে সবচেয়ে বেশি দুর্ঘটনা হচ্ছে।

পাঠকের মতামত: