ঢাকা,বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী হলেন চকরিয়ার কৃতি সন্তান এডভোকেট রবিউল এহেছান

চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি ::  বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে আইনপেশা পরিচালনার জন্য বার কাউন্সিলের মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছেন কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়নের কৃতি সন্তান তরুণ আইনজীবী রবিউল এহেছান লিটন। এখন তিনি হাইকোর্ট বিভাগে সকল মামলা কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারবেন।

বুধবার (২৩ আগস্ট) বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট অডিটোরিয়ামে আনুষ্ঠানিক ভাবে বার কাউন্সিল থেকে এ ফলাফল ঘোষণা করা হয়।

এডভোকেট রবিউল এহেছান লিটন উপজেলার পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়নের দরবেশকাটা এলাকার বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আলী আকবর সওদাগরের বড় সন্তান। তিনি জেলার শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠ থেকে ২০০৬ সালে অভাবনীয় সাফল্যের মাধ্যমে কৃতিত্বের সহিত এস.এস.সি পাশ করেন। চট্টগ্রাম ক্যান্টমেন্ট পাবলিক কলেজ থেকে ২০০৮ সালে এইচএসসি পাস করেন এবং চট্টগ্রাম প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এল. এল. বি (অনার্স) এল.এল. এম সম্পন্ন করে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আইনজীবী হিসেবে পেশায় নিযুক্ত হন। তরুণ এই আইনজীবী পেশায় যোগদানের পর থেকে সততা, নিষ্টা, আন্তরিকতা ও কর্মের মাধ্যমে স্বল্প সময়ের ভেতরে কক্সবাজার আদালত প্রাঙ্গণে আইনজীবীদের হৃদয়ের মনিকোঠায় স্থান করে নেয়। যার প্রেক্ষিতে তার যোগ্যতার মাধ্যমে ২০১৮ সালে কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোটে কার্যনির্বাহী সদস্য নির্বাচিত হন তিনি। সর্বশেষ বুধবার বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে আইনপেশা পরিচালনার জন্য বার কাউন্সিলের মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে দেশের সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী হন।

এডভোকেট রবিউল এহেছান লিটন এক প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বলেন, আইন পেশায় নিযুক্ত হওয়ায় পর থেকে এদেশের অবহেলিত জনগোষ্ঠীর কল্যাণে নি:স্বার্থ ভাবে কাজ করে যাচ্ছি। ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠায় এবং অসহায় মানুষের কল্যাণে যেন আরো বড় পরিসরে কাজ করে যেতে পারি তার জন্য সকলের নিকট দোয়া কামনা করছি।

পাঠকের মতামত: