ঢাকা,রোববার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০

পেকুয়ায় নদী থেকে যুবকের ভাসমান লাশ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক, পেকুয়া ::
কক্সবাজারের পেকুয়ায় নদী থেকে মুহাম্মদ আজিম উদ্দিন (২২) প্রকাশ মানিক নামের এক যুবকের ভাসমান মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

আজ মঙ্গলবার (১৫সেপ্টম্বর) সকাল ১১টার দিকে পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে। আজিম উদ্দিন উপজেলার টইটং ইউনিয়নের পশ্চিম সোনাইছড়ি নতুনপাড়া গ্রামের মুহাম্মদ শাকের উল্লাহ’র ছেলে। রমিজ উদ্দিন এক সন্তানের জনক বলে জানা গেছে।

পেকুয়া থানার ওসি কামরুল আজম জানায়, লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। লাশের সাথে জাল, রশি ও মাছ ছিল। কোন ধরনের আঘাতের চিহ্ন দেখা যায়নি। সুরতহাল রিপোর্ট শেষে ময়না তদন্তের জন্য লাশ কক্সবাজার সদর হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

রিপোর্ট পাওয়ার পর বিস্তারিত জানা যাবে।

নিহত আজিম উদ্দিনের স্বজনদের বরাত দিয়ে জানা গেছে, আজিম উদ্দিন গত রবিবার থেকে নিখোঁজ ছিল। রাতে মাছ শিকার করতে গিয়ে আর ফিরে আসেনি। মঙ্গলবার সকালে টইটং প্রবাহমান খালের নাপিতখালী-মৌলভী বাজার পয়েন্টে স্থানীয়রা তার ভাসমান লাশ দেখতে পায়। খবর পেয়ে আমরা তার লাশ সনাক্ত করি। পুলিশকে অবগত করা হলে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে।

আজিম উদ্দিনের স্ত্রী নাছিমা আক্তার জানায়, রবিবার রাত ১০টার দিকে আজিম জাল নিয়ে মাছ শিকার করতে বের হয়। ওই সময় থেকে সে নিখোঁজ ছিল। মঙ্গলবার সকালে খালে তার ভাসমান লাশ পাওয়া যায়।

###################

পেকুয়ার মগনামায় ৭৪২জন জেলে পেল সরকারি চাল

নিজস্ব প্রতিবেদক, পেকুয়া ::
কক্সবাজারের পেকুয়ায় মগনামা ইউনিয়নে ৭৪২জন জেলে পরিবারকে চাল বিলি করা হয়েছে। মানবিক সহায়তার আওতায় সরকার হতদরিদ্র জেলেকে সরকারী খাদ্য শস্য সরবরাহ দিয়েছেন। প্রত্যেক জেলেকে ৩০ কেজি (১ বস্তা) হারে ওই ইউনিয়নে ৭৪২জনকে ২২.২৬০ মে.টন মানবিক সহায়তা হিসেবে বিশেষ ভিজিএফ খাদ্য সহায়তার আওতায় এসব চাল বিলি করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৫সেপ্টম্বর) দুপুর ১২টার দিকে মগনামা ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয় থেকে ভিজিএফ চাল বিলির কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন করেছেন পেকুয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোতাছেম বিল্যাহ। সামাজিক দুরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি অনুসরন করে এসব চাল বিলির উদ্যেগ নেয়া হয়েছে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন দায়িত্বপ্রাপ্ত ট্যাগ অফিসার পেকুয়ার সমবায় কর্মকর্তা কামাল পাশা, ইউপি সচিব অনিল কান্তি দেব, ইউপি সদস্য আজিজুল হক, খোরশেদ আলম, নুর মুহাম্মদ বদ, শাহেদুল ইসলাম, জসিম উদ্দিন, জাঈদুল হক, চেয়ারম্যানের ব্যক্তিগত সহকারি নেজামুল ইসলাম মুজাহিদ প্রমুখ। ইউপির চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরী ওয়াসিম জানিয়েছেন, আমার মগনামা ইউনিয়নের জন্য ২২.২৬০মে.টন চাল বরাদ্ধ দিয়েছেন। সরকার দ্বিতীয় ধাপে প্রান্তিক জেলেদের জন্য এসব চাল বরাদ্ধ দিয়েছেন। এদিন মানবিক সহায়তার আওতায় বিশেষ ভিজিএফ এর চাল বিতরন করছি। আমার ইউনিয়নে ৭৪২জন জেলেকে এ চাল দেয়া হচ্ছে। প্রত্যেক জেলেকে ৩০কেজি (১বস্তা) চাল দিয়েছি।

পাঠকের মতামত: