ঢাকা,রোববার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০

সোনাদিয়ায় হচ্ছে না গভীর সমুদ্রবন্দর

নিউজ ডেস্ক ::
প্রাকৃতিক বৈচিত্র্যের ভারসাম্য নষ্ট না করতে মাতারবাড়ির কাছাকাছি সোনাদিয়ায় গভীর সমুদ্রবন্দর করার সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে সরকার।

এজন্য ‘সোনাদিয়া গভীর সমুদ্রবন্দর কর্তৃপক্ষ আইন, ২০১২’ এর খসড়া নীতিগত অনুমোদনের বিষয়ে মন্ত্রিসভা কর্তৃক ২০১২ সালের ২ জানুয়ারি গৃহীত সিদ্ধান্ত বাতিলের প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

গতকাল সোমবার (৩১ আগস্ট) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার ভার্চ্যুয়াল বৈঠকে এই অনুমোদন দেওয়া হয়।

বৈঠক শেষে সচিবালয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, সোনাদিয়ায় গভীর সমুদ্রবন্দর করার কথা ছিল। ২০১২ সালের ২ জানুয়ারি মন্ত্রিসভা বৈঠকে সোনাদিয়া গভীর সমুদ্রবন্দর কর্তৃপক্ষ আইন অনুমোদন দেওয়া হয়েছিল।

‘কিন্তু পরবর্তী সময়ে সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে, সোনাদিয়ায় আর কোনো সমুদ্রবন্দর হবে না। সোনাদিয়ার খুব কাছাকাছি মাতারবাড়িতে একটা সমুদ্রবন্দর নির্মাণ চলছে। যেহেতু মাতারবাড়িতে হয়ে গেছে সেজন্য সোনাদিয়ায় যদি আরেকটি সমুদ্রবন্দর হয় তবে আমাদের প্রাকৃতিক বৈচিত্র্যের অনেক ভারসাম্য ক্ষুণ্ন হবে।’

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এটা যখন স্টাডিতে ধরা পড়ল তখন সরকার সিদ্ধান্ত নিল সোনাদিয়ার প্রকৃতির ক্ষতি করে সমুদ্রবন্দর করার দরকার নেই। মাতারবাড়িই মাচ মোর সুইটেবল।

‘সেজন্য এখন আর ওই আইনের কোনো প্রয়োজনীয়তা নেই বলে ওই আইন বাতিলের প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। ’

পাঠকের মতামত: