ঢাকা,সোমবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৩

রাত ১০টার মধ্যে মাইকের ব্যবহার বন্ধের দাবি

নিউজ ডেস্ক :: আমাদের জীবনের সঙ্গে দূষণ শব্দটি এখন ওতপ্রোতভাবে জড়িত। প্রতিনিয়ত আমরা শব্দ ও বায়ুদূষণের শিকার হচ্ছি। যা আমাদের সুস্থ ও সুন্দরভাবে বেড়ে ওঠার পথে অন্তরায়। দেশের বর্ধিত জনসংখ্যার সঙ্গে প্রতিনিয়ত বেড়ে চলছে দূষণের হার। এর জন্য আমাদের অসচেতনতাই মূলত দায়ী। শীতকাল এলে বহু গুণে বেড়ে যায় শব্দ ও বায়ু দূষণের হার।
এদিকে বিশ্বে দূষিত শহরের তালিকায় ফের শীর্ষে উঠে এসেছে ঢাকার নাম। গতকাল রোববার বেলা ১১টা ৫২ মিনিটে বায়ু মানের সূচক (একিউআই) অনুযায়ী ঢাকায় বাতাসের মান ছিল ১৯৮। সেই হিসেবে ঢাকাকে শীর্ষে রাখা হয়েছে। এরই প্রেক্ষিতে এবার শব্দ ও বায়ূ দূষণমুক্ত নগরীর দাবিতে মাঠে নেমেছে নাগরিক আন্দোলন। গতকাল সংগঠনের উদ্যোগে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাব চত্বরে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
নাগরিক আন্দোলনের সভাপতি বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ জসিম উদ্দিন বাবুলের সভপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন পূর্ব সমাবেশ সঞ্চালনা করেন নাগরিক আন্দোলনের সদস্য সচিব নান্টু বড়ুয়া। এতে বক্তব্য রাখেন সাংবাদিক বেলায়েত হোসেন, রাজনীতিবিদ গাজী আলমগীর, এস এম গোলাম নিজামী, মুর্শেদ আলম, বনবিহারী চক্রবর্তী, মিঠুল দাশ গুপ্ত, শিল্পী নারায়ন দাশ, শিল্পী ডিকে মামুন, স্বপন বড়ুয়া, প্রণব বড়ুয়া, মঞ্জুশ্রী বড়ুয়াা, বেলী বড়ুয়া, অধ্যক্ষ জয় দেব কর, আশরাফুল আলম টোকন, আন্দেলন বড়ুয়া, শিল্পী রবিন আতিক, সাংবাদিক রোকন উদ্দিন, পরিবেশবিদ ইমতিয়াজ আহমেদ প্রমুখ। কর্মসূচিতে বক্তারা রাত ১০টার পরে উচ্চস্বরে মাইক বাজানো বন্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনকে অনুরোধ করেন। সভাপতির বক্তব্যে জসিম উদ্দিন বাবুল উল্টোপথে গাড়ি চালানোর ব্যাপারে শূন্য সহনশীলতার নীতি গ্রহণ করতে এবং হাইড্রোলিক হর্ণ ব্যবহারকারীদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নিতে আহবান জানান। তিনি বলেন, কাগজে-কলমে নিয়ম চালু আছে দীর্ঘদিন ধরে। কিন্তু সেই নিয়ম-বিধির তোয়াক্কা না করেই রাতবিরেতে যথেচ্ছ মাইক বাজানো হয়। তিনি বলেন, রাস্তার মাঝখানে বাস থামিয়ে যাত্রী উঠানামা বন্ধ করা এবং জেব্রা ক্রসিং ব্যবহার করে যেন জনগণ সহজে চলাচল করতে পারে সে ব্যাপারে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে প্রশাসনের প্রতি আহবান জানাচ্ছি।

পাঠকের মতামত: