ঢাকা,রোববার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০

খালেদা জিয়ার মুক্তি ও গ্যাসের দাম বৃদ্ধির বিরুদ্ধে আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে -শাহজাহান চৌধুরী

প্রেস বিজ্ঞপ্তি ::  সাবেক তিনবারের প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপির চেয়ারম্যান খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবি ও গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধি করার প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে এক বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে কক্সবাজার জেলা বিএনপি।আজ মঙ্গলবার বিকাল ৪টায় জেলা বিএনপির কার্যালয়ে এই বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য শাহজাহান চৌধুরীর সভাপতিত্বে এবং সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক এম মোকতার আহমদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত উক্ত বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি এটিএম নূরুল বশর চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক এড. শামীম আরা স্বপ্না, যুগ্ম সম্পাদক মোবারক হোসাইন, জেলা যুবদলের সভাপতি এড. সৈয়দ আহামদ উজ্জল, জেলা মৎসজীবি দলের সদস্য সচিব মোস্তফা কামাল, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি শাহাদাত হোসেন রিপন, সাধারণ সম্পাদক ফাহিমুর রহমান ফাহিম।

সভাপতির বক্তব্যে সরকার কর্তৃক নতুন করে গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির শাহাজাহান চৌধুরী বলেন, জনবিচ্ছিন্ন সরকার জনগণের উপর বেপরোয়াভাবে জুলুমতান্ত্রিক উপায়ে শোষণ চালাচ্ছে। দফায় দফায় অযৌক্তিভাবে জ¦ালানি গ্যাসের দাম ৩২.৮ শতাংশ বৃদ্ধি জনগণের উপর চরম জুলুমের নগ্ন বহি:প্রকাশ। সিএনজির দাম প্রতি ঘনমিটার ৩৮ থেকে বাড়িয়ে ৪২ টাকা করা হয়েছে। আবাসিক, বাণিজ্যিক বিদ্যুৎ, সিএনজি ও শিল্পখাতসহ সকল ক্ষেত্রে নতুন করে জ¦ালানীর দাম বৃদ্ধিতে জনদুর্ভোগ জ্যামিতিক হারে বৃদ্ধি পাবে। এতে সমাজের শ্রেণিবৈষম্য বৃদ্ধি পাবে। মধ্যবিত্ত শ্রেণি নি¤œমধ্যবিত্তে এবং নি¤œমধ্যবিত্ত শ্রেণি হতদরিদ্র শ্রেণিতে পরিণত হবে। অবিলম্বে এই দাম বৃদ্ধি প্রত্যাহার করতে হবে।’ তিনি বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তির দাবী জানান।

বিক্ষোভ সমাবেশের শুরুতে কোরআন তেলোয়াত করেন আইন কলেজ ছাত্রদলের আহ্বায়ক আবু তাহের মিজবাহ। আরো উপস্থিত ছিলেন- জেলা বিএনপির দপ্তর সম্পাদক ইউসুছ বদরী, জেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি রাশেদুল ইসলাম রাসেল, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এড. মনির উদ্দীন, জেলা যুবদলের সহ-সভাপতি মউসুদুর রহমান মাসুদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম-সম্পাদক আবদুর রহিম, শহর যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মাস্টার জসীম উদ্দীন, শহর ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক এড. আল আমিন, কক্সবাজার সরকারি কলেজ ছাত্রদলের আহ্বায়ক আবদুল হামিদ খান, সিটি কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি মোঃ ইমরান, সাধারণ সম্পদক আল আসিফ প্রমুখ।

পাঠকের মতামত: