Home » চকরিয়া » চকরিয়ায় পরকিয়া প্রেমে ডিস মালিকের হাত ধরে পালিয়েছে প্রবাসীর সুন্দরী স্ত্রী

চকরিয়ায় পরকিয়া প্রেমে ডিস মালিকের হাত ধরে পালিয়েছে প্রবাসীর সুন্দরী স্ত্রী

It's only fair to share...Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

1Foar5u_1-300x162এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া :::

চকরিয়ায় প্রবাসীর সুন্দরী স্ত্রী রোমানা পরকিয়া প্রেমের কারনে অবশেষে পালিয়ে গেছেন প্রেমিক ডিস লাইন মালিক সেলিমের সাথে। প্রবাসী স্বামীর পাঠানো অর্থসম্পদ হাতিয়ে নিয়ে বাড়িতে নিজের দুই সন্তানকে বাড়ীতে রেখে তিন সন্তানের জনক ডিশলাইন ব্যবসায়ীর হাত ধরে পালিয়েছে প্রবাসীর স্ত্রী রোমানা। স্বামীর প্রবাস জীবনের উপার্জন করা ৩২লক্ষ টাকা ও অর্জিত সম্পদ নিয়ে স্ত্রীর পলায়নে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন স্বামী ও তার পরিবার। এদিকে মেয়ের অপবাদ নিয়ে হতবাক হয়ে পড়েছেন রোমানার পিতা ও তার পরিবার। দূর্নাম থেকে রেহাই পেতে মেয়ের বিরুদ্ধে আইনের আশ্রয় নিয়েছেন পিতা। অভিযোগ করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও চকরিয়া পৌরসভার মেয়রের দপ্তরে। পলাতক লস্পট রোমানা আক্তার চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের পূর্বডুমখালী হাছান আলীর কন্যা। এ ঘটনায় উভয় পরিবারে নেমে এসেছে অন্ধকার। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার মালুমঘাট পূর্বডুমখালী গ্রামে।

চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও পৌরসভার মেয়রের দপ্তরে রোমেনার বাবা হাছান আলীর দায়ের করার অভিযোগে জানা গেছে, ১৫বছর পূর্বে তার মেয়ে রোমেনা আক্তারকে বিয়ে দেন চকরিয়া পৌরসভার পালাকাটা গ্রামের মাষ্টার জামাল উদ্দিনের পুত্র প্রবাসী গিয়াস উদ্দিনের সাথে। বর্তমানে তাদের সংসারে দুটি সন্তান রয়েছে। জীবিকার তাগিদে স্বামী গিয়াস উদ্দিন প্রথমে সৌদি আরব এবং পরে দুবাই অবস্থান করছেন। প্রবাস জীবন থেকে গিয়াস উদ্দিন তার স্ত্রী রোমেনাকে মাসে মাসে টাকা পাঠাতো। এছাড়া একটি বাড়ি নির্মাণের জন্য ৩২লক্ষ টাকা পাঠায়। কিন্তু ওই টাকায় বাড়ি না করে স্বামীর অনুপস্থিতিতে স্বামীর চাচাতভাই হেলাল উদ্দিনসহ একাধীক প্রবাসীর সাথে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়ে এবং হেলাল উদ্দিনকে নিয়ে ঘর সংসার করার কু-মতলবে পালাকাটায় স্বামীর ভিটায় ঘর না করে পূর্বডুমখালীর পৈত্রিকবাড়ীর নিকটে পাকাঘর তৈরী করে।

অভিযোগে আরো জানা গেছে, ৪/৫বছর ধরে দুই জনের সাথে সম্পর্ক রেখেই ঘর তৈরীর আশ্বাসে স্বামী গিয়াস উদ্দিনের সমস্থ টাকা হাতিয়ে নেয়ার পর গিয়াস উদ্দিনের কাছে একটি তালাকনামা পাঠিয়ে দেয়।এবং পরকীয়া প্রেমিক হেলালকে বিয়ে করবে বলে ঘোষনা দেয় রোমানা। এবং ৪/৫বছর ধরে গিয়াস উদ্দিনের সাজানো সংসারে বিদেশ থেকে এসে স্বামী-স্ত্রীর মত বসবাস করে আবার চলে যায়। বাড়ীর পাশে মেয়ের সংসারে অপরিচিত লোকজনের অতীষ্ট হয়ে পড়েন রোমানার পিতা হাসান আলী। তিনি নিরোপায় হয়ে মেয়ের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও চকরিয়া পৌরসভার মেয়রের কাছে পৃথক অভিযোগ দায়ের করেন।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, ইতিমধ্যে সুন্দরী রোমেনা বাপের বাড়ির পাশের ৩ সন্তানের জনক ডিশ লাইন ব্যবসায়ী সেলিমের সাথে পরকিয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়েন। এরই জের ধরে গত শুক্রবার দুই সন্তানকে বাড়ীতে রেখে সেলিমের হাত ধরে পালিয়ে যায় এই গৃহবধু। এ ঘটনায় এলাকার লোকজনের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। একই সাথে পরিবারের দূর্নাম রক্ষা করতে মেয়ের বিরুদ্ধে আইনের আশ্রয় নিয়েছেন তার বাবা উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের মালুমঘাট পূর্বডুমখালী গ্রামের বৃদ্ধা হাছান আলী। #

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

লামায় নদীর মাঝে নৌকায় চলছে রমরমা জুয়ার আসর

It's only fair to share...27400মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি ::  বান্দরবানের লামায় অভিনব কায়দায় প্রশাসনের ...