Home » চট্টগ্রাম » লোহাগাড়ায় এমপি নদভী অনুসারীদের সড়ক ব্যারিকেডে আ.লীগের নিন্দা

লোহাগাড়ায় এমপি নদভী অনুসারীদের সড়ক ব্যারিকেডে আ.লীগের নিন্দা

It's only fair to share...Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

লোহাগাড়া প্রতিনিধিঃ
লোহাগাড়া উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা (ইউএনও) মাহবুব আলমকে অপসারণ ইস্যু নিয়ে এবার ‘সচেতন জনসাধারণ’র ব্যানারে স্থানীয় সংসদ সদস্য ড. আবু রেজা নদভীর অনুসারীরা আবারও বিক্ষোভ ও সড়ক ব্যারিকেড দিয়েছে। ২৬ এপ্রিল বৃহস্পতিবার বিকেল ৪ টা ১৫ মিনিটের দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কস্থ উপজেলা পরিষদ গেট এলাকায় তারা এ বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। এ সময় সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে লোহাগাড়ার মাটি, নদভী ভাইয়ের ঘাঁটি এবং দূর্নীতিবাজ ইউএনও’র অপসারণ চাই অপসারণ চাই স্লোগান দিতে দিতে বিক্ষোভ প্রদর্শন করতে দেখা যায়। তাদের বিক্ষোভের কারণে বিকেল ৪টা ১৫ মিনিট থেকে সাড়ে ৫টা ৪৫ পর্যন্ত দেড় ঘন্টা চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে যানচলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। পরে উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দীন হিরু ও দক্ষিণ জেলা আ.লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক নুরুল আবছার চৌধুরীর নেতৃত্বে আ.লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা এসে বিক্ষোভকারীদের ধাওয়া করে যানচলাচল স্বাভাবিক করেন। এ সময় সালাহ উদ্দীন হিরুকে ট্রাফিক পুলিশের ভূমিকায় দেখা যায়।

ইউএনও’র অপসারনের দাবীতে একই স্থানে লোহাগাড়ার সতেচন জনসাধারণের ব্যানারে এমপি নদভীর অনুসারীরা চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন ও সড়কে ব্যারিকেট দিয়ে যান চলাচল ব্যাঘাত সৃষ্টি করে। এ ঘটনার খবর পেয়ে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আ.লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক মাওলানা নুরুল আবছার চৌধুরী ও উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দীন হিরুর নেতৃত্বে অর্ধ শতাধিক নেতাকর্মী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন এবং যান চলাচল স্বাভাবিক করতে পুলিশের সাথে বাক-বিতন্ডায় লিপ্ত হয়। পরে তাদের হস্তক্ষেপে যানচলাচল স্বাভাবিক হয়।
এদিকে, এ বিক্ষোভ ও সড়ক ব্যারিকেট দিয়ে মহাসড়কে যানচলাচল বিঘ্ন সৃষ্টির ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ এক লিখিত বিবৃতি প্রদান করেছেন। বিবৃতিতে উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দীন হিরু এ বিক্ষোভটি লোহাগাড়া থানা পুলিশের পৃষ্ঠপোষকতায় সংসদ সদস্য অধ্যাপক আবু রেজা নদভীর অনুসারী কিছু উৎশৃঙ্খল যুবক ঘটিয়েছে বলে দাবী করেন। এছাড়াও প্রতিবাদলিপিতে সরকারের একজন ইউএনওকে অপসারণের দাবীতে বিক্ষোভ ও রাস্তা অবরোধের ঘটনায় সরকারেরই একজন সংসদ সদস্য ও থানা পুলিশ পৃষ্টপোষকতা দেবে এটা সত্যিই নিন্দনীয় ও দু:খজনক বলে জানান। এ ঘটনায় সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন বিক্ষোভের খবর পেয়ে তিনি সাথে সাথেই ঘটনাস্থলে আসেন এবং বিক্ষোভকারীদের ধাওয়া করে যানচলাচলের পরিবেশ সৃষ্টি করেন। এ সময় পুলিশ যানজট নিরসন না করে উল্টো বিক্ষোভকারীদের তামাশা দেখছিলেন বলে উল্লেখ করেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

চকরিয়া-পেকুয়া আসনে জাতীয় পাটির মনোনয়নপত্র নিয়েছেন বর্তমান এমপি হাজি ইলিয়াছ

It's only fair to share...000নিজস্ব প্রতিবেদক, চকরিয়া ::   একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কক্সবাজার-১ (চকরিয়া-পেকুয়া) আসন ...