ঢাকা,শনিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২২

কক্সবাজার দৃশ্যমান হচ্ছে কক্সবাজার ইনডোর স্টেডিয়াম

নিউজ ডেস্ক :: কক্সবাজার ইনডোর স্টেডিয়াম নির্মাণ কাজ শেষ পর্যায়ে। দৃশ্যমান হচ্ছে জেলার ক্রীড়ামোদিদের অনেক দিনের লালিত স্বপ্ন এ ইনডোর স্টেডিয়াম। আর অল্প কিছু কাজ শেষ হলে এর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। ইনডোর স্টেডিয়াম নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হলে কক্সবাজারের ক্রীড়ঙ্গনের অনেক বড় অবদান রাখবে বলে জানান জেলা ক্রীড়াসংস্থার কর্মকর্তারা।

চলতি বছরের ৩ মার্চ কক্সবাজার ইনডোর স্টেডিয়ামের আনুষ্টানিক নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করেন সরকারের ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল। তবে এর আগেই নির্মাণ কাজের কিছুটা অগ্রগতি হয়েছিল সে হিসাবে প্রায় ৯ মাসের মধ্যেই দৃশ্যমান হয়েছে কক্সবাজার ইনডোর স্টেডিয়ামের নির্মাণ কাজ। এতে বেশ খুশি জেলার সাধারণ ক্রীড়ামোদী থেকে শুরু করে জেলা ক্রীড়া সংস্থার কর্মকর্তারা।

এ ব্যাপারে জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মোঃ জসিম উদ্দিন বলেন, কক্সবাজার ইনডোর স্টেডিয়াম ও মূল মাঠের গ্যালারী সহ বিভিন্ন উন্নয়ন কাজের জন্য প্রায় ২০ কোটি টাকা বরাদ্ধ করা হয়। সময় চলতি জুন মাসে শেষ হলেও করোনা পরিস্থিতি সহ বিভিন্ন কারণে কাজ করতে পারেনি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ফলে মন্ত্রণালয় থেকে তারা সময় বাড়িয়ে নিয়েছিল। তবে আমার মতে অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের চেয়ে কাজ অনেক দ্রæত হয়েছে এবং কাজের মানও ভাল হয়েছে।

কারণ আমরা সার্বক্ষণিক তদারকি সহ বিভিন্ন দায়িত্ব পালন করেছি। সাধারণ সম্পাদক জানান, ইতোমধ্যে জেলার সমস্ত ক্রীড়ামোদীদের দীর্ঘদিনের দাবী ইনডোর স্টেডিয়াম নির্মাণ কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে এখন শুধু প্লাস্টার করা বাকী। মূল কাজ হয়ে গেছে। আশা করছি দু এক মাসের মধ্যে সেটা উদ্বোধন করা যাবে।

তিনি জানান এখানে জিসনেসিয়াম, মূল খেলার পিস, গ্যালারী, ড্রেসিং রুম, প্রশিক্ষণ রুম সহ অনেক কিছুর সুবিধা আছে। জেলা উশু এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মোঃ শেখ সেলিম জানান, বাংলাদেশের মধ্যে ইনডোর গেমসে কক্সবাজার এখন মডেল। প্রায় সময় জাতীয় এবং আর্ন্তজাতিক ভাবে ইনডোর খেলার গোল্ড সহ বিভিন্ন পুরস্কার অর্জন করছে আমাদের শিক্ষার্থীরা। বর্তমানে অনেক প্রতিক‚লতার মাঝে প্রশিক্ষণ এবং গেমস আয়োজন করতে হয়। অনেক সরাঞ্জামও নেই তবুও আমাদের ছেলেমেয়েরা ভাল করছে তাদের প্রতিভার কারণে। সেখানে আমাদের দীর্ঘদিনের দাবী ছিল একটি আর্ন্তজাতিক মানের ইনডোর স্টেডিয়াম, অনেক দিন পর হলেও সেটা স্বপ্ন বাস্তবায়ন হচ্ছে এতে আমরা বেশ খুশি। আমি মনে করি কক্সবাজারের খেলোয়াড়রা এতে বেশ ভাল সুযোগ সুবিধা পাবে এবং ভাল ফল বয়ে আনতে পারবে।

জেলা কারাতে এসোসিয়েশনের সভাপতি সাবেক পৌর কাউন্সিলার সিরাজুল হক বলেন, কারাতে এক সময় কক্সবাজারের পরিচয় বহন করতো, জাতীয় ভাবে কারাতে খেলাকে প্রমোট করেছে কক্সবাজারের বাসিন্দারা। দীর্ঘ বছর পর আবার কারাতে খেলাকে প্রাতিষ্ঠানিক রুপ দিতে পেরে আমরা বেশ আনন্দিত। আর নব প্রতিষ্টিত ইনডোর স্টেডিয়াম কারাতে সহ জেলার সমস্ত ইনডোর খেলাকে আরো এগিয়ে নিতে বড় ভুমিকা রাখবে। জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ সভাপতি অধ্যক্ষ জসিম উদ্দিন এবং আবছার উদ্দিন বলেন, ফুটবল, ক্রীকেটের পাশাপাশি আমাদের ইনডোর গেমস গুলোতে বেশ সফলতা আছে।

কক্সবাজারে জেলা ক্রীড়া সংস্থার অনেক ছেলেমেয়ে আর্ন্তজাতিক গেমসেও অংশ গ্রহন করে পুরস্কার নিয়ে আসছে এটা আমাদের জন্য অনেক গৌরবের কিন্তু আমরা তাদের ভাল মাঠ, ভাল পরিবেশ দিতে পারিনা, অনেক অভিভাবকরা মাঠে বসে বা দাড়িয়ে থেকে তাদের বাচ্চাদের প্রশিক্ষণ নেয়। এখন আমাদের নতুন সংযোজন ইনডোর স্টেডিয়াম নির্মাণ কাজ শেষ হলে আসা করি পুরু বাংলাদেশে আমাদের ছেলেমেয়েরা আরো অনেক ভাল করবে। এটা জেলাবাসীর জন্য অনেক বড় অর্জন হয়ে থাকবে।

পাঠকের মতামত:

 
error: Content is protected !!