ঢাকা,রোববার, ৫ ডিসেম্বর ২০২১

পর্যটন দিবসে সৈকত জুড়ে গরু আতংক

কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে দেখা যায় কয়েকশ’ গরু
কক্সবাজার প্রতিনিধি :: বিশ্ব পর্যটন দিবসে কক্সবাজার সমুদ্র সৈকত জুড়ে গরু আতংকে ছিলো পর্যটকরা। কয়েকশ গরুর অবাধ ছোটাছুটিতে ২৭ সেপ্টম্বর (সোমবার) দিনভরই আতংকে ছিলো সৈকতে বেড়াতে আসা দেশি বিদেশী পর্যটকরা। বিশ্ব পর্যটন দিবসে প্রশাসনের কোন উদ্যোগ দেখা যায়নি সৈকতে মালিক বিহীন কয়েক’শ গরু নিয়ে। বিশ্ব পর্যটন দিবসে দেশের প্রধান পর্যটন কেন্দ্রের এই অবস্থা দেখে পর্যটকেরা সৈকতের ব্যবস্থাপনা নিয়ে চরম হতাশা প্রকাশ করেছেন।

গতকাল বিশ্ব পর্যটন দিবসে কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতের লাবনী পয়েন্ট ও সুগন্ধা পয়েন্ট জুড়ে অবাধ বিচরণ করেছে কয়েক’শ মালিক বিহিন গরু। পর্যটন দিবেসে কক্সবাজারের সৈকতের গুরুত্বপূর্ণ এক কিলোমিটার সৈকত জুড়ে কিছুদূর পরপরই দেখা মিলেছে গরুর পাল।
এসময় সৈকতে বেড়াতে আসা পর্যটকদের জন্য একটি আতংকের কারণ হয়ে দাড়িয়েছিলো এই গরু গুলো। আসাদ হোসেন নামের এক পর্যটক জানিয়েছেন, গরু গুলো সৈকতের বালিয়াড়িতে হেটে বেড়ানোর সময় তাকে গুতো দেয়ার চেস্টা করছিলো। গরু আতংকে তিনি একপর্যায়ে সৈকত থেকে উপরে চলে আসেন।

শামিম হোসেন ও তাসনুভা নামের নব দম্পতি অভিজ্ঞতা আরো খারাপ। তারা দুজন সৈকতের সুগন্ধা পয়েন্টের চেয়ারে বসে ছিলো, এই সময় ১টি গরু তাদের চেয়ার ও ছাতায় শিং দিয়ে গুতো মারা শুরু করে। ভয়ে তারা হোটেলে চলে যান। বিশ্ব পর্যটন দিবসে গরুর আতংকে গতকাল সমুদ্র সৈকতে পর্যটকেরা তাদের পরিবারের নারী ও শিশুদের নিয়ে সবচেয়ে বেশি ভোগান্তিতে ছিলো। কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের পর্যটন সেল এর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সৈয়দ মুরাদ হাসান জানিয়েছেন, হঠাৎ করে সৈকতের সুগন্ধা পয়েন্টে কিছু গরু নামার খবর শুনেছি।এসব গরুর মালিকদের খোঁজা হচ্ছে।

পাঠকের মতামত:

 
error: Content is protected !!