ঢাকা,সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০

চকরিয়ায় মাদরাসার ছাদে অরক্ষিত তারে জড়িয়ে শিশুর মৃত্যু: বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও

এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া ::  কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নে একটি মাদরাসার ছাদে খোলা বিদ্যুৎ তারে জড়িয়ে মো. তাসিম রুবাইয়া (৭) নামে এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের পাগলীরবিল ভিলেজার পাড়া এলাকায় ঘটেছে এ ঘটনা। নিহত শিশু রুবাইয়া পাশের লামা উপজেলার ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের কুরুপপাতাঝিরি গ্রামের নুরুল আমিন বাবুলের ছেলে।

এ ঘটনার পরপর স্থানীয় উত্তেজিত জনতা মাদরাসার ছাদে খোলা বিদ্যুৎ তার এলোমেলোভাবে রাখার প্রতিবাদে জড়িতদের শাস্তির দাবিতে ডুলাহাজারা পল্লী বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও করেছে। তবে ওইসময় খবর পেয়ে স্থানীয় ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নুরুল আমিন ঘটনাস্থলে পৌঁছে উত্তেজিত জনতাদের সান্তনা দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। পরবর্তীতে পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে খোলা তারের বিদ্যুৎ লাইন দ্রুত সেখান থেকে সরিয়ে নেওয়ার ব্যবস্থা গ্রহন করেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ডুলাহাজারা ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য (মেম্বার) মোঃ সোলাইমান জানান, গতকাল শিশু তাসিম তার বড়ভাইয়ের সাথে ডুলাহাজারাস্থ পাগলীরবিলের শাহ মজিদিয়া রশিদিয়া হাফেজ খানা মাদ্রাসায় ভর্তি হতে আসছিলেন। ওইসময় মাদ্রাসা পাশের মসজিদে জুমার নামাজের পর সে অন্য শিশুদের সাথে ওই মাদ্রাসার ছাদে খেলতে উঠে। এসময় ছাদের ওপর দিয়ে নেওয়া পল্লীবিদ্যুৎ লাইনের খোলা তারে আটকা পড়ে ঘটনাস্থলেই শিশুটির মৃত্যু হয়।

স্থানীয় সুত্রে অভিযোগ উঠেছে, গত দুইবছর ধরে ঝুঁকিপূর্ণ এই বিদ্যুৎ লাইন সরাতে মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ থেকে লিখিত আবেদন জানানো হয় স্থানীয় পল্লী বিদ্যুৎ অফিসে। সেসময় পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ ঝুঁকিপূর্ণ লাইনটি সরাতে মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ থেকে দুই হাজার টাকাও নিয়েছিলেন। কিন্তু পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ ওই খোলা তারের লাইনটি না সরিয়ে ঝুঁকিতেই রেখেদেন।

জানতে চাইলে ডুলাহাজারা পল্লী বিদ্যুৎ অভিযোগ কেন্দ্রের ইনচার্জ মোঃ সাহেদুল ইসলাম বলেন, তিনি গতকাল মাত্র ডুলাহাজারা অফিসে যোগদান করেছেন। পল্লী বিদ্যুতের সঞ্চালন লাইনটি আগামী দুইদিনের মধ্যে সেখান থেকে অপসারণ করবেন।

বিষয়টি প্রসঙ্গে চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাবিবুর রহমান স্থানীয় সাংবাদিকদের বলেন, ডুলাহাজারা ইউনিয়নে বিদ্যুৎ তারে জড়িয়ে শিশুর মৃত্যুর বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আমিন আমাকে জানিয়েছেন। এ ঘটনায় কেউ অভিযোগ দেয়নি। তবে অভিযোগ প্রাপ্তি সাপেক্ষে বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।##

পাঠকের মতামত: