Home » কক্সবাজার » বঙ্গোপসাগরে মহেশখালীর ফিসিং বোট ডাকাতি: ৭ মাঝি মাল্লা অাহত

বঙ্গোপসাগরে মহেশখালীর ফিসিং বোট ডাকাতি: ৭ মাঝি মাল্লা অাহত

It's only fair to share...Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

মহেশখালী প্রতিনিধি ::

মহেশখালীর সোনাদিয়া দ্বীপ সংলগ্ন দক্ষিণ পশ্চিমে বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরারত অবস্থায় মহেশখালীর এফবি অাল্লাহর দান নামক একটি ফিশিং বোট ডাকাতির শিকার হয়েছে।  ডাকাতরা বোটের ৭ মাঝি-মাল্লাকে মারধর করে গুরুতর অাহত করে বোটে থাকা অনুমানিক ২ লাখ টাকার জাল,মাছ লুট করে নেয়। শনিবার দিবাগত রাতে সংঘটিত ডাকাতির ঘটনায় অাহত মাঝিমাল্লা ও ট্রলারটি  রবিবার (৮ এপ্রিল) সকালে উদ্ধার করে অাহতদের ককস বাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে ।
জলদস্যু আক্রান্ত বোটের মালিক মহেশখালী উপজেলার কালারমার ছড়া ইউনিয়নের মোহাম্মদ শাহ ঘোনা গ্রামের মোহাম্মদ হোছাইন এর পুত্র ফরিদুল আলম ও জেলেরা জানান, ৭ এপ্রিল শনিবার দিবাগত রাত ১০টার দিকে সাগরে মাছ ধরা অবস্থায় মহেশখালীর সোনাদিয়া দ্বীপের দক্ষিন পশ্চিম ও  ককস বাজারের কলাতলীর সোজা পশ্চিমে তীর থেকে অনুমান ১০ নটিক্যাল মাইল দুরে অপর একটি ফিসিং বোট যোগে ১৫/১৬ জনের একদল জলদস্যু ফিশিং তাদের এফবি আল্লাহর দান নামের বোটের উপর চড়াও হয়। এসময় ডাকাতেরা বোটে উঠে মাঝি মাল্লাদের এলোপাতাড়ি মারধর করে। এতে মাঝি ছৈয়দ নুর (৪০), মাল্লা অাশেক (২০), সোহেল (২১), কালা সোনা (১৮), শাহিনুল হক (২৩), মঞ্জুর (২৭), ও বদিউল অালম (৪৫) আহত হন।
ডাকাতদল মাঝি-মাল্লাদের মারধর করে জাল, মাছ, ডিজেল, সরঞ্জাম সহ প্রায় ২ লক্ষ টাকার মালামাল নিয়ে যায়। এসময় মাঝি মাল্লারা ডাকাতদের চিনতে না পারলেও ডাকাতদের ব্যবহৃত বোটে এফবি ছফুরা নাম দেখতে পেয়েছে বলে জানান। পরে ডাকাতির শিকার বোটটি  অন্যান্য বোটের সহায়তায় গতকাল রবিবার (৮ এপ্রিল) সকালে ককস বাজার ঘাটে পৌছাতে সক্ষম হয়। আহতদের ককস বাজার সদর হাসপাতালেহ ভর্তি করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

৫৭-র চেয়ে ৩২ বড়ই থাকল, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন পাস

It's only fair to share...23500নিজস্ব প্রতিবেদক ::  সাংবাদিক ও মানবাধিকার সংগঠনসহ বিভিন্ন মহলের আপত্তি থাকলেও ...