Home » জন্মমৃত্যু » উখিয়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা শমশের আলম চৌধুরী চির বিদায়: রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন

উখিয়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা শমশের আলম চৌধুরী চির বিদায়: রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন

It's only fair to share...Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

ডিডডডফারুক আহমদ, উখিয়া :::

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঘনিষ্ট সহচর, বর্ষিয়ান রাজনীতিবিদ, ‍মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক রতœাাপালং ইউনিয়নের একটানা ৩০ বছরের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও উখিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি এবং দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সৈনিক আলহাজ্ব শমসের আলম চৌধুরী ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নাল্লিলাহি……রাজেউন)। মৃত্যু কালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৬ বছর।

গত ৭ ফেব্রুয়ারী বার্ধক্যজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে চট্টগ্রামস্থ সার্জিস্কোপ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত বুধবার রাত ২.৩০ মিনিটের দিকে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে স্ত্রী, ৬ ছেলে, ৩ মেয়েসহ অসংখ্য আতœীয়-স্বজন ও রাজনৈতিক সহকর্মী রেখে গেছেন। এ প্রবীণ রাজনীতিবিদের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে উখিয়া-টেকনাফসহ পুরো কক্সবাজার জেলার সকল শ্রেণী পেশার মানুষের মাঝে শোকের ছায়া নেমে আসে। গতকাল বিকাল ৫টায় উখিয়ার ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পালং আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের খেলার মাঠে মরহুমের নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত জানাযার নামাজে ইমামতি করেন পীরে কামেল আলীম উদ্দিন ফকির। জানাযার পূর্বে কক্সবাজার জেলা প্রশাসক আলী হোসেনের নেতৃত্বে মুক্তিযোদ্ধা শমশের আলম চৌধুরীকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় গার্ড অব অনার প্রদান করেন উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মাঈন উদ্দিন, সহকারী পুলিশ সুপার (উখিয়া সার্কেল) আব্দুল মালেক মিয়া ও উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ হাবিবুর রহমান। এ সময় সংক্ষিপ্ত মরহুমের জীবনীর উপর বক্তব্য রাখেন কক্সবাজার জেলা পরিষদ প্রশাসক মোস্তাক আহমদ চৌধুরী, কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এডভোকেট সিরাজুল মোস্তফা, সাবেক সংসদ সদস্য ও টেকনাফ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী, জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সাংসদ শাহজাহান চৌধুরী, সাবেক জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এডভোকেট এ কে আহমদ হোসাইন, জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম চৌধুরী, সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দিন, সাংসদ আবদুর রহমান বদি, সাংসদ সাইমুন সরওয়ার কমল, সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান ও মরহুমের ছেলে উখিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি অধ্যাপক আদিল উদ্দিন চৌধুরী। জানাযার পূর্বে সংক্ষিপ্ত শোক সভা পরিচালনা করেন সাবেক উখিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান মাহামুদুল হক চৌধুরী।

অন্যান্যদের মধ্যে জানাযায় উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার জেলা প্রশাসক আলী হোসেন, উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মাঈন উদ্দিন, সহকারী পুলিশ সুপার (উখিয়া সার্কেল) আব্দুল মালেক মিয়া, উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ হাবিবুর রহমান, কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও চকরিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান রেজাউল করিম, মহেশখালীর পৌর মেয়র মকসুদ মিয়া, রামু উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রিয়াজুল আলম রিয়াজ, কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগ নেতা আবু হেনা মোস্তাফা কামাল, মাহাবুবুল আলম মুকুল, পৌর কক্সবাজার আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোহাম্মদ মুজিবুল ইসলাম, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আবু তালেব, টেকনাফ উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ইউনূছ বাঙালী, উখিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী, উখিয়া উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান সরওয়ার জাহান চৌধুরী, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন হাসপাতালের পরিচালক ডাক্তার আবুল কালাম, জেলা বিএনপির সদস্য খাইরুল আলম চৌধুরী, সিনিয়র সাংবাদিক তোফায়েল আহমদ, এডভোকেট আয়াছুর রহমান, কক্সবাজার সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আবু তাহের, সাধারণ সম্পাদক জাহেদ সরওয়ার সোহেল, সিনিয়র সাংবাদিক মুহাম্মদ আলী জিন্নাত, সিনিয়র সাংবাদিক আব্দুল কুদ্দুস রানা, সকালের কক্সবাজারের সম্পাদক ফরহাদ ইকবাল, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী, কক্সবাজার জেলা কৃষকলীগের সভাপতি আতিক উদ্দিন চৌধুরী, এডভোকেট নুরুল ইসলাম পিপি, কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইসতিয়াক আহমদ জয়, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইমরুল হাসান রাশেদ, রতœাপালং ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল কবির চৌধুরী, জালিয়াপালং ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন চৌধুরী, হলদিয়াপালং ইউপি চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন মিন্টু, সাবেক চেয়ারম্যান নুরুল আমিন চৌধুরী, সাবেক রাজাপালং ইউপি চেয়ারম্যান শাহ কামাল চৌধুরী, উখিয়া সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি ফারুক আহমদ ও সাধারণ সম্পাদক গফুর মিয়া চৌধুরী। এছাড়াও জানাযায় বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ, শিক্ষক, সাংবাদিক, ওলেমায়েকেরাম সহ সর্বস্থরের মানুষ জানাযায় অংশগ্রহণ করেন। বীর মুক্তিযোদ্ধা শমশের আলম চৌধুরীকে রাষ্ট্রীয়ভাবে গার্ড অব অনার প্রদান করেন। পরে মরহুমের লাশ রতœাপালং ইউনিয়নের খোন্দকার পাড়া (দরগাহ মোরা) কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের কবর স্থানে শায়িত করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>

x

Check Also

1492957780

দারিদ্র্যমুক্ত করতে শিক্ষায় সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিচ্ছে সরকার : প্রধানমন্ত্রী

It's only fair to share...000প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, দেশকে দারিদ্র্যমুক্ত করার একমাত্র উপায় হিসেবে সরকার ...